বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই অথবা উপেক্ষণীয় সম্পাদনা সহকারে প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।

লেখকের তথ্য

Photo
জন্মদিন: ৮ এপ্রিল ১৯৭৩
গল্প/কবিতা: ১টি

প্রাপ্ত পয়েন্ট

কবিতা - প্রতীক্ষা (অক্টোবর ২০১৬)

মোট ভোট শুন্যতায় অবগাহন

Mohammad Sharif Uddin
comment ৪  favorite ০  import_contacts ১৩৩
প্রতীক্ষা একটি কুপির নাম কিংবা একটি হারিক্যান
টিমটিম জ্বলে রাতের আঁধারেসাঁতারকাটেপ্রতীক্ষা!
কখন খানাপিনা হবে এই অপেক্ষায় ধুকপুক করে বুক
কখন মা কুপির সলতে নিভিয়ে দিবেন
তারপর শুতে যাবো কাঠের শক্ত চৌকিতে
ঘুমের অতল গহ্বরে ডুবে যাবো ক্লান্তির প্রশান্ত আঁধারে
স্বপ্নের মায়াবী পরীর দেশে উড়ে বেড়াবো মেঘের সাথে
শৈশব থেকে কৈশোর এক জ্বালা ধরা অপেক্ষার নাম
কবে বড় হবো আরও বড় মুক্ত স্বাধীনসাদাবক
পেটানো চওড়া বুক হবে টানটান শক্ত পেশীবহুল হাত
লম্বা যুবক হবো আমি মাথা উঁচু এক দেবদারু গাছ
অতঃপর আমার আলোয় আমি উজ্জ্বল দীপ্যমান হবো।

এ এক গোলাপি প্রতীক্ষা-ঝিমুনি চোখেগাছেরশাখায়
লাউয়ের মাচানে ফিঙ্গের নাচ দেখে নাচার প্রতীক্ষা
দক্ষিনা হাওয়ার তোরে এলানো শরীর ভাসমান
বাড়ির উঠোনে লাঠিম খেলা, ব্যাঙ্গেরমতোকরেডাক
ভীষণ বৃষ্টিতে ভিজে ভিজে কাদায় মাখামাখি গা
বিজলীর চমকে এক ছুটে ঘরের ভিতর।
প্রতীক্ষায় দিন কাটে এমনি করে জানালার পাশে
পড়ন্ত বিকেলের শান্ত ছোঁয়া ফিরে আসেনা আর
চঞ্চলা কিশোরীর ছুটে যাওয়া পায়ের ছন্দ
আর আসে না কানে। চকিতে তাকাই একরাশশুন্যতানিয়ে
মুগ্ধ হবার প্রতীক্ষায় ভেসেগেছেকতকতবছরশেষে
এখনোস্বপ্নেরমতোইহাত-পানাড়েমাতৃজটরেশিশু!

আমি অবগাহন করি নিয়ত ফেনিল সাগরে
প্রতীক্ষা শেষ আমার যৌবনের পড়ন্ত বিকেলে
সোনার কাঁকন পরা যুবতীর বিনম্র আহ্বানে
আমি ইতি টেনে দিলাম প্রতীক্ষার মাতাল সমীরণে।
আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন